স্মার্টফোন সুরক্ষিত রাখতে মাথায় রাখুন এই কয়েকটি বিষয়

আজকের দিনে কার হাতে না স্মার্টফোন নেই। ছেলে বা মেয়ে একটু বড় হয়েছে তো তাঁদের অভিভাবকরাই এই জিনিসটি ছেলেমেয়েদের হাতে তুলে দেন। ক্ষতিকারক জেনেও কখনও ছেলেমেয়েদের বায়নাক্কা মেটাতে বা কখনও সুবিধার জন্য মোবাইল কিনে দিতে বাধ্য হন বাবা মায়েরা। কিন্তু তা বাজে অর্থেই ব্যবহার করে ফেলে। তবে স্মার্টফোন ঘরে থাকলেই হয় না। সাবধনতা অবশ্যই অবলম্বন করতে হয়। আজ বিপদ হয়নি বলে কাল হবে না এমন কথার তো মানে নেই। আর প্রায়ই তো স্মার্টফোন বিস্ফোরণের খবর পাওয়া যায়। তাই নিজের প্রাণের থেকেও প্রিয় স্মার্টফোনটি ব্যবহারের সময় এই কয়েকটি জিনিস মাথায় রাখুন-

Image Source- https://www.youtube.com

. ফোনের ব্যাক কভার খুলে রেখে তবে চার্জ দিন। কারণ, চার্জ দেওয়ার সময় তাপ ফোনের ব্যাক কভারের মধ্যে আটকে যায়, বাইরে বেরোতে পারে না। ফলে ব্যাটারির ওপর প্রভাব পড়ে।
. ফোনে বার বার চার্জ দেবেন না। একবার চার্জ দিয়ে সেটি ৯০ শতাংশ করে নেওয়া উচিত। আর ২০ শতাংশের নীচে হয়ে গেলেই চার্জে বসানো উচিত।

Image Source- https://www.southernphone.com


. ফোন চার্জ দেওয়া অবস্থায় ফোনে কথা বলা উচিত নয়। বিদ্যুত্ সংযোগের ফলে বিস্ফোরণে মৃত্যু অবধি হতে পারে।
. বারবার সিম কার্ড খোলাপড়া একদম কপবেন না। এতে সিমের জায়গায়টি যেমন নষ্ট হয় তেমনি ফোনের ওপর চাপ পড়ে।
. জল হাতে ফোন চার্জে দেবেন না। এতে শক লাগার ভয় থাকে।
. রাতে বালিশের নীচে ফোন রেখে শোওয়াটা বিপদ। এতে ফোনের রে থেকে শরীরে ক্ষতি হয়।

Image Source- https://steptohealth.com


. রাতের অন্ধকারে ফোন ব্যবহার থেকে বিরত থাকুন। কারণ, অন্ধকারে ফোনের রে চোখকে আকর্ষণ করে আর চোখের ক্ষতি করে।
. হেডফোন ব্যবহার করুন কথা বলার সময়।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!
%d bloggers like this: